৬০ হাজার বছরের পুরোনো আগ্নেয়গিরির ওপর ফাটল (ভিডিও)

নিউজ ডেস্কঃ

বুকের নীচে ঘুমিয়ে রয়েছে ষাট হাজার বছরের বৃদ্ধ আগ্নেয়গিরি। সেই অবস্থায় নিউজিল্যান্ডের ভূপৃষ্ঠে জেগে উঠল বিশাল ফাটল। অবশ্য ফাটল বা বলে একে গহ্বর বলাই ভালো।

কারণ দৈর্ঘ্যে ও প্রস্থে এর বিশাল চেহারা ভয় ধরাচ্ছে মানুষের মনে। পরিমাপ করে দেখা গিয়েছে এই ফাটলের গভীরতা ২০ মিটার, দৈর্ঘ্যে ২০-৩০ মিটার এবং ২০০ মিটার লম্বা। নিউজিল্যান্ডের নর্থ আইল্যান্ডের রোটোরুয়া এলাকায় এই বিশাল ফাটল দেখা গিয়েছে।

মনে করা হচ্ছে এই বিশাল ফাটল প্রায় দুটো ছোট ফুটবল মাঠের সমান। চলতি মাসের প্রথম দিকে এই ফাটল চোখে পড়ে স্থানীয় বাসিন্দাদের। তারপর সেই ফাটল ক্রমশ বাড়তে থাকে।

ভারি বৃষ্টিপাতের কারণে প্রচুর মাটি সরে যাওয়াতেই এই ফাটলের সৃষ্টি। তবে এই ঘটনায় অন্য মাত্রা যোগ করেছে আগ্নেয়গিরির উপস্থিতি। ৬০ হাজার বছর পুরোন ওই আগ্নেয়গিরির পাথরের স্তর আকর্ষণ করেছে আগ্নেয়গিরি বিশেষজ্ঞদের।

নিউজিল্যান্ডের এক আগ্নেয়গিরি বিশারদ জানাচ্ছেন, এটি তাঁর দেখা সর্ববৃহৎ ফাটল। ভলক্যানো ইনফরমেশন স্পেশালিস্ট ব্র্যাডলি স্কট বলছেন ফাটলের মধ্যে একটি ড্রোন পাঠানো হয়েছে। যাতে বোঝা যায় যে কী ধরণের পাথরের স্তর সেখানে রয়েছে। আগ্নেয়গিরিটির গঠন সম্পর্কেও তথ্য পাওয়া যাবে এর মাধ্যমে।

তবে এই ধরণের ফাটল তৈরি হওয়া নিউজিল্যান্ডে নতুন নয়। আগ্নেয় গিরিখাতে এই ধরণের বহু ফাটল বা সিঙ্কহোল দেখা যায়। যদিও এই ফাটলটি তাদের মধ্যে সর্ববৃহৎ। গত বছর অস্ট্রেলিয়ার সিডনিতে প্রধানমন্ত্রী ম্যালকম টার্নবুলের বাসভবন থেকে এক কিলোমিটারের মধ্যে এই ধরণের ফাটল দেখতে পাওয়া যায়।

** ভিডিও দেখতে এখানে ক্লিক করুন **

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *