ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া এই ছবির আসল কাহিনি কী

একটি কঙ্কালের ছবি ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। কয়েকদিন ধরে ফেসবুকে স্ক্রল করে এই ছবি দেখে আঁতকে উঠছেন অনেকেই।

এই ছবির রহস্য কী? পোস্টের ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, ফ্ল্যাটে মৃত্যু হওয়া এক কোটিপতির নারীর কঙ্কাল এটি। মৃত্যুর প্রায় ১০ মাস পর ফ্ল্যাটের ভেতরে এই অবস্থায় ওই নারীকে আবিষ্কার করে তার ছেলে।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, ফেক্ট চেক করে দেখা গিয়েছে এই ধরনের একটি ঘটনা ঘটলেও এর সঙ্গে ছবিটির কোনো কোনো ধরনের সম্পর্ক নেই।

ছবিটি ইতিমধ্যে হাজার হাজার মানুষ শেয়ার দিয়েছে, সেখানে কমেন্ট করেছেন আরও হাজার হাজার মানুষ।

ছবিটির ক্যাপশন থেকে জানা যায়, মুম্বাইয়ের আশা সাহনি নামে এক নারীর কঙ্কাল এটি। তার সম্পত্তির মূল্য সাত কোটি রুপি। ২০১৩ সালে স্বামী মারা যাওয়ার পর নিজের অ্যাপার্টমেন্টে একা বসবাস করতেন তিনি। তার ছেলে ঋতুরাজ থাকতেন যুক্তরাষ্ট্রে। একদিন ঋতুরাজ মুম্বাইয়ে ফিরে এসে দেখেন ফ্ল্যাটে মায়ের কঙ্কাল পড়ে আছে। অন্তত ১০ মাস আগে মৃত্যু হয়েছে আশা সাহনি নামে ওই নারী।

কিন্তু অনুসন্ধান করে জানা গিয়েছে, এই পোস্টে যে ছবিটি ভাইরাল হয়েছে সেটি ২০১৬ সালে নাইজেরিয়ার ওগুন এলাকার একটি ঘটনার। এক ধর্মপ্রচারকের বাড়িতে উদ্ধার হওয়া এক নারীর কঙ্কাল এটি। যেটির সঙ্গে মুম্বাইয়ের ঘটনার কোনো ধরনের সম্পর্ক নেই।

তবে ক্যাপশনে উল্লেখ করা এ রকম একটি ঘটনা ঘটেছিল মুম্বাইয়ে। দেড় বছর যুক্তরাষ্ট্রে কাটিয়ে ২০১৭ সালে দেশে ফিরে এসে এক ব্যক্তি আবিষ্কার, ঘরের বিছানায় তার মায়ের কঙ্কাল পড়ে আছে।

তবে ছবির সঙ্গে ক্যাপশনে যেভাবে ঘটনাটি বর্ণনা করা হয়েছে সেখানে এ নিয়ে অতিরঞ্জিত করা হয়েছে বলে অনুসন্ধানে জানা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *