রাতে ত্বকের যত্ন নেয়ার সঠিক নিয়ম

দিনের রূপচর্চার চেয়েও রাতের রূপচর্চা অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। কারণ আমাদের ঘুমের সময়টাতেই সারাদিনের ক্লান্তি, স্ট্রেস, দূষণের প্রভাব ইত্যাদি কাটিয়ে ওঠে ত্বক। তাই ত্বক সুস্থ রাখার জন্য সঠিক যত্ন নেয়াটাও জরুরি। রাতে আমাদের ত্বক সঠিক বিশ্রাম ও যত্ন পেলে সতেজ হয়ে ওঠে দ্রুত।

রাতে একটানা গভীর ঘুম হওয়া জরুরি। তারচেয়েও বেশি গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে ঘুমাতে যাওয়ার অন্তত দু’ ঘণ্টা আগে টিভি, মোবাইল, কম্পিউটার স্ক্রিনের চড়া আলো থেকে দূরে থাকা। স্ক্রিন থেকে প্রতিফলিত চড়া আলো ত্বকের স্বাস্থ্যের পক্ষে ঠিক কতটা ক্ষতিকারক। সচেতন না হলে কিন্তু সময়ের আগেই বুড়িয়ে যাবে বিশেষ করে মুখ, গলা আর চোখের চারপাশ।

ঘুমাতে যাওয়ার আগে পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে গল্প করুন, বই পড়ুন কিন্তু ফোন বা ল্যাপটপ খুলবেন না। সারাদিন প্রচুর পানি পান করুন। তবে রাতের দিকে বেশি পানি খাবেন না তাতে নিশ্চিন্ত ঘুম বাধাপ্রাপ্ত হয়। ঘুমের সময় কিন্তু আপনার ত্বকও ‘রিপেয়ার মোড’-এ থাকে, তাই যত নিশ্চিন্তে ঘুমোবেন, তত ভিতর থেকে সেরে উঠে ঝলমল করবে ত্বক।

রাতের বেলা ব্যবহারের জন্য একটু ভারী ক্রিম বা প্রডাক্ট বেছে নিতে পারেন। মনে রাখবেন, যত আর্দ্র থাকবে আপনার ত্বক, তত স্থিতিস্থাপকতা বজায় থাকবে। বলিরেখাও পড়বে না। রাতে শুতে যাওয়ার আগে মুখ পরিষ্কার করে ধুয়ে নেবেন।

কোল্ড প্রেসড ভার্জিন অলিভ বা নারিকেল তেল ত্বকের মেকআপ তোলার জন্য খুব ভালো, ইদানীং মিসেলার ফেস ওয়াইপ ব্যবহারের চলও হয়েছে। তবে অ্যালকোহল বা সুগন্ধিযুক্ত ফেস ওয়াশ ব্যবহার না করলেই ভালো হয়। মুখ ধোয়ার পর উষ্ণ তোয়ালে রাখুন মুখের উপর- ত্বক আর্দ্রতা ও উষ্ণতা শুষে নেবে। তারপর ব্যবহার করুন আপনার প্রিয় কোনো ময়েশ্চারাইজার।

রাতের বেলায় কিছু কিছু অ্যান্টিঅক্সিডান্ট একদমই কাজ করে না। আপনি যদি ভিটামিন সি ক্রিম ব্যবহারে অভ্যস্ত হন, তাহলে সেটা না বদলে উপায় নেই, কারণ রাতের অন্ধকারে তা মোটেই কাজ করবে না। রাতের জন্য তাই বেছে নিন ভিটামিন ই সমৃদ্ধ ক্রিম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *