মাশরাফির থেকে শিক্ষা নেওয়া দরকার : ইমরান খান

১৯৮৩ সালের আজকের এই দিনে নড়াইলের চিত্রা নদীর পাড়ে মহিষখোলা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন মাশরাফি। তবে তিনি নড়াইলে কৌশিক নামেই সমধিক পরিচিত। ছোটবেলা থেকেই দুরন্ত ছিলেন তিনি। চিত্রা নদীর পাড়ে তার শৈশব কেটেছে। মাশরাফির বাবা স্বপন ছিলেন ফুটবলার ও অ্যাথলেট। যদিও তিনি চাইতেন না ছেলে ক্রিকেট খেলুক। তবে মাশরাফির মা স্কুলশিক্ষিকা হামিদা মর্তুজা চাইতেন মাশরাফির সব ইচ্ছা পূরণ করতে। তাই তিনিছেলে ক্রিকেট খেলার সামগ্রী কেনার টাকা দিতেন।

২০০১ সালের ৮ নভেম্বর টেস্টের মধ্যে দিয়ে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলে আগমন ঘটে তাঁর। ২০০৯ সাল পর্যন্ত এই ফরম্যাটে মোট ৩৬টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। এরই মাঝে নিয়েছেন ৭৮টি উইকেট। একই সঙ্গে তিনটি হাফ সেঞ্চুরিসহ রান করেছেন ৭৯৭। টেস্ট থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে অবসরের ঘোষণা না দিলেও এ ফরম্যাটে ফিরবেন না তিনি।

এরপরে একই বছরের ২৩ নভেম্বর ওয়ানডে ক্রিকেটে মাশরাফির অভিষেক হয়। সর্বশেষ ইংল্যান্ড বিশ্বকাপ পর্যন্ত ২১৭টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। বাংলাদেশের প্রথম বোলার হিসেবে তিনি ২৬৬টি উইকেটও তুলে নিয়েছেন ।সম্প্রতি টি-টুয়েন্টিতে থেকে অবসর নিয়েছেন তিনি। ক্রিকেটের এ ফরম্যাটে ৫৪ ম্যাচ খেলে নিয়েছেন ৪২টি উইকেট। সেই সঙ্গে ব্যাট হাতে করেছেন ৩৭৭ রান।গত এশিয়া কাপে টাইগার অধিনায়ক মাশরাফির প্রশংসা করেছেন ইমরান খান। তিনি বলেন, ‘মাশরাফি থেকে সকলকে শিক্ষা নেওয়া দরকার কিভাবে দলের প্রয়োজনে নিজের জীবন বাজি রেখে খেলে যায়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *